গরম থেকে বাঁচতে যা করবেন

প্রচণ্ড গরমে অস্থির হয়ে উঠেছে চারপাশ। বৃষ্টির দেখা না থাকায় আরো বেশি ভ্যাপসা হয়ে উঠেছে পরিবেশ। লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে তাপমাত্রার পারদ। বিশেষ করে ঢাকায় বাতাসে জলীয় বাষ্পের পরিমাণ বেড়ে ঘাম কোন ভাবেই আটকানো যাচ্ছে না। ফলে একেবারেই হাঁসফাঁস অবস্থা। বাতাসে আর্দতা বেশি থাকায় কয়েকদিন ধরে তীব্র গরম(hot) অনুভূত হচ্ছে ।চরম এই গরমের অজুহাতে কিন্তু বসে থাকার সুযোগ নেই। নানা কাজে, এদিক-সেদিক নানা দিকে ছুটোছুটি করতে হবে অবশ্যই।

Loading...

গরম থেকে বাঁচতে যা করবেন

আর গরম বাড়ার সাথে সাথে মানুষের অসুস্থ(Sick) হওয়ার প্রবণতাও বাড়তে থাকে। এই অবস্থায় তৈরি রাখতে হবে নিজেকে। কীভাবে সুস্থ থাকবেন, নিজেকে সারাদিন সতেজ রাখবেন? জেনে নেওয়া যাক, এমনই কিছু উপায়।

এই গরমে কী করবেন?
রোদ থেকে এসেই সঙ্গে সঙ্গে ঠাণ্ডা পানি খাবেন না। মশলাদার খাবার(Spicy food) এড়িয়ে যান। অতিরিক্ত চা, কফি পান করবেন না। মোটা ও গাঢ় রংয়ের পোশাক, সিনথেটিক পোশাক এড়িয়ে চলুন। হালকা ঢিলেঢালা জামা পরুন।

রোদে বেরোনোর আগে বেশি প্রসাধনী ব্যবহার করবেন না। কিন্তু সানস্ক্রিন(Sunscreen) ব্যবহার করতে ভুলবেন না। অবশ্যই বেরোনোর সময়ে ব্যাগে জলের বোতল রাখুন। পারলে জলে নুন চিনি মিশিয়ে রাখুন। এছাড়া সানগ্লাস, ছাতা, টুপি রাখুন।

পড়ুন  শরীরের যত্নে অ্যারোবিক এক্সারসাইজ

গরম লাগছে বলেই রাস্তা থেকে কাটা ফল(Fruit), সরবত কিনে খাবেন না। এতে রোগ সংক্রমণ হয়। খুব প্রয়োজন না হলে রোদে বেরোবেন না।

গরমে কী ধরণের পোশাক পরতে হবে?
হালকা, সুতির কাপড় পরতে হবে। রংও গাঢ় না হলেই ভাল হয়। অন্তর্বাস প্রতিদিনই বদলাতে হবে৷ সানগ্লাস(Sunglasses) ব্যবহার করবেন৷ ছাতা ছাড়া বাইরে বেড়োবেন না৷

এই গরমে কী খাওয়া উচিৎ?
গরমে তেল-মশলা বেশি খাওয়া উচিৎ নয়৷ হালকা রান্না খেতে হবে৷ রাস্তার কাটা ফল বা লেবুর রস(Lemon juice) একেবারেই সুরক্ষিত নয়৷ পানি পান করতে হবে প্রচুর পরিমাণে৷ দিনে অন্তত ৩.৫ থেকে ৪ লিটার৷ রাস্তার খোলা পানি একেবারেই নয়৷ এর থেকে ইনফেকশন হওয়ার আশঙ্কা থাকে৷

শসা: শসা ভিটামিন এবং মিনারেলস পরিপূর্ণ একটি সবজি। এর ৯৬ শতাংশ পানি। শসা(Cucumber) কেবল শরীরকে ঠাণ্ডাই রাখে না, সতেজ অনুভূতিও দেয়।

ডাবের পানি : ডাবের পানির মধ্যে রয়েছে প্রাকৃতিক ইলেক্ট্রোলাইট। এটি শরীরকে আর্দ্র রাখতে কাজ করে।

দই : প্রবোটাইটিকস খাদ্য হিসেবে দই(Curd) চমৎকার। গরমে এই খাবার তাৎক্ষণিক শক্তি দেয়। তাই এটিও রাখতে পারেন আপনার দৈনন্দিন খাদ্য তালিকায়।

পড়ুন  সকালে নিয়মিত লেবু পানি পানের ২০টি জাদুকরী উপকারিতা

পুদিনা : পুদিনার মধ্যে রয়েছে শরীর ঠাণ্ডা করার উপাদান। এটি শরীরকে সতেজ করে।

লেবুপানি : খুব গরমে এক গ্লাস লেবুপানি(Lemon water) আপনাকে প্রশান্তি দেবে। এটা স্বাস্থ্যকর, পাশাপাশি শরীরকে ঠাণ্ডা রাখতেও কাজ করবে।

তরমুজ : তরমুজ(Watermelon) এমন একটি খাবার, এটি কেবল গরমে পাওয়া যায়। এটি শরীরকে ঠাণ্ডা রাখে। এর মধ্যে রয়েছে পানীয় উপাদান।

Loading...

ফেসবুক কমেন্ট

comments

About পূর্ণিমা তরফদার

আমি পূর্ণিমা তরফদার আপনার ডক্টরের নতুন রাইটার। আশাকরি আপনার ডক্টরের নিয়ামিত পাঠকরা আমাকে সাদরে গ্রহণ করবেন ও আমার পোষ্টগুলো পড়বেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.