cool hit counter

বর্ষায় পায়ের যত্ন – Foot Care

ব্যস্ত জীবনে সকাল থেকে রাত অব্দি আমরা ছুটে বেড়াই। নিজেরা ক্লান্ত হই তো বটেই, সেই সাথে সারাদিন আমাদের ভার বয়ে বেড়ানো পা দুটোর অবস্থা হয়ে যায় আরও খারাপ। তার ওপর এই মৌসুমের স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়া, এই রোদ, তো এই বৃষ্টি, কাদা-পানিতে মাখামাখি হয়ে পায়ের অবস্থা হয়ে পড়ে আরও নাজুক। কিন্তু পায়ের যত্ন না নিলে কি চলে। প্রচলিত আছে, একটা মানুষ ঠিক কতটুকু পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন তা বোঝা যায়, তার পায়ের দিকে তাকালে। আপনি খুব ভালো পোশাক, জুতো যাই পড়ুন না কেন পা যদি হয় মলিন, তবে সৌন্দর্যের অনেকখানিই ঢাকা পড়ে যাবে। তাই জেনে নিন কিছু মুনসুন ম্যাজিক।

পায়ের যত্ন

বর্ষায় পায়ের যত্ন – Foot Care

বর্ষার এই স্যাঁতস্যাঁতে সময়টাতে পা ভিজে যাওয়া একটা রোজকার সমস্যা। যা থেকে হতে পারে ফাঙ্গাল ইনফেকশন, চুলকানি, পায়ের দুর্গন্ধ ও কালো ছোপ ছোপ দাগ। তাই পায়ের যত্নে জেনে নিন ঝটপট কিছু টিপস।

১) পা পরিষ্কার রাখুন: সারাদিন বৃষ্টির সাথে দৌড়ঝাঁপ করে বাড়ি ফিরেছেন তো? এবার একটি পাত্রে হালকা গরম পানি নিয়ে তাতে অল্প পরিমাণে স্যাভলন বা ডেটল। ৫-৭ মিনিট পা ডুবিয়ে রেখে তুলে ফেলুন। হালকা হাতে লুফা দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। তারপর কোন অ্যানটিব্যাকটেরিয়াল সাবান দিয়ে পা ধুয়ে ভালোভাবে মুছে ফেলুন। বর্ষায় পায়ের নখ যত ছোট রাখা যায় ততই ভালো, নয়তো নখের নিচের জমে থাকা ময়লা প্রচুর ভোগান্তি কারন হয়ে দাঁড়াতে পারে।

২) এক্সফলিয়েট: এসময় প্রতিদিন গোসলের সময় লুফা দিয়ে পা ঘষে পরিষ্কার করা উচিত। যদি হাতে সময় থাকে তবে ১০ মিনিটের জন্য শাওয়ার জেল অথবা স্যাম্পু গোলা পানিতে পা ভিজিয়ে রেখে, ভালোভাবে পরিষ্কার করে নেবেন।

লুফা

৩) বাড়িতেই করুন পেডিকিউর: প্রথমেই নিমপাতা দিয়ে পানি ফুটিয়ে নিন। তারপরে এতে পাতিলেবুর রস, অল্প লবন ও শ্যাম্পু মিশিয়ে পা ডুবিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। এরপরে পিউমিস স্টোনের সাহায্যে গোড়ালি এবং পায়ের তলা ভালোভাবে পরিষ্কার করুন। পা শুকনো করে মুছে ভালো কোন ক্রিম পুরো পায়ে লাগিয়ে নিন।

৪) পায়ের কালো ছোপ দূর করতে: এসময় অনেকের পায়েই কালো কালো ছোপ পড়তে দেখা যায়। এই সমস্যা থেকে বাঁচতে, মসুর ডাল বাটা, ২ টো অ্যালমণ্ড বাটা, দুধ এবং ১ চা চামচ গ্লিসারিন দিয়ে মিশ্রণ বানিয়ে নিন। পায়ে লাগিয়ে রাখুন, শুকিয়ে গেলে দুধ দিয়ে ভালো করে ঘষে তুলে ফেলুন। তারপর হালকা গরম জলে পা ধুয়ে ভালো ভাবে ধুয়ে পরিষ্কার কাপড় দিয়ে মুছে নিন।

৫) ফুট মাস্ক: মুখে যদি মাস্ক লাগাতে পারেন, তবে পায়ে কেন নয়? ২ টেবিল চামচ মুলতানি মাটির সাথে, হলুদ বাটা, নিম পাতা বাটা মিশিয়ে পায়ে লাগিয়ে রাখুন ২০ মিনিট । তারপরে হালকা গরম পানিতে ঘষে ঘষে পা ধুয়ে নিন। পা ভালো করে মুছে লাগিয়ে নিন হালকা একটু অলিভ অয়েল। এরপরে ঘুমিয়ে পড়ুন। সকালে উঠে দেখবেন নরম মসৃণ পা।

৬) ক্লান্ত পা: পায়ের ক্লান্তি দূর করতে ঠাণ্ডা পানিতে লেবুর রস মিশিয়ে পা ডুবিয়ে রাখুন। ক্লান্তিও দূর হবে। সান ট্যান ও কমাবে আশা করি।

৭) গোড়ালির শক্ত চামড়া তুলতে: ক্যাস্টর অয়েল, অলিভ অয়েল এবং নারকেল তেল সমপরিমাণে মিশিয়ে নিয়ে এর সাথে মেশান ২ চা চামচ চিনি ও লেবুর রস। পায়ের শক্ত চামড়ায় ঘষতে থাকুন যতক্ষন না তেল ত্বকে শুষে নিচ্ছে।

৮) পায়ে গন্ধ হলে, নিয়মিত পেডিকিউর রুটিন মেনে চলুন। পা পরিস্কার করে মুছে নিয়ে ময়েশ্চারাইজার লাগান হালকা করে। এরপরে একটু খানি ট্যালকম পাওডার লাগিয়ে নিন। সব সময় বন্ধ জুতো না পরে খোলা জুতো বা স্যান্ডেল পড়ুন। অফিসে যদি জুতো পরতেই হয় তাহলে সুতি মোজা পড়ুন। আর মাঝে মাঝে জুতো খুলে রাখুন, বাতাস চলাচলের জন্য।

হয়ে গেলো তো বর্ষায় পায়ের যত্নের সমাধান। তাহলে এবার বর্ষা উপভোগ করুন অন্যসব ঋতুর মতন।

ভালো থাকুন, সুস্থ থাকুন।

ছবি – রেয়ারসিডস.কম,ইউসিহেলথ.কম

লিখেছেন – মাহবুবা হক বীথি

মাহবুবা বীথি।

ফেসবুক কমেন্ট

comments

About সাদিয়া প্রভা

সাদিয়া প্রভা , ইন্ডিয়ার Apex Group of Institutions এর BBA এর ছাত্রী ছিলাম। বর্তমানে বাংলাদেশে স্বাস্থ্য বিয়সক তথ্য নিয়ে লেখালেখি করি।