cool hit counter

বৈশাখী রূপচর্চা ও বৈশাখী সাজ

বৈশাখী রূপচর্চা ও বৈশাখী সাজ

বৈশাখী রূপচর্চা
গরমের সময় ত্বকের অতিরিক্ত যত্ন নেওয়া প্রয়োজন। কারণ এ সময়ে শরীর থেকে প্রচুর পরিমাণে ঘাম ঝড়ে এবং ত্বকে সূর্যের প্রচণ্ড তাপ ও ধুলাবালির আক্রমণ বেশী হয়।তাই বৈশাখী রূপচর্চায়  ত্বকের যত্নে বাড়তি যা করতে হবে-
-বেশী বেশী করে পানি পান করুন। আর পানীয় জাতীয় খাবার খান।
-প্রতিদিন নিয়মিত গোসল করতে হবে। প্রয়োজনে একাধিক বার।
-সূতি আরামদায়ক পোশাক পরিধান করতে চেষ্টা করুন।
-রোদে বেরুবার সময় শরীরের অনাবৃত অংশে সান স্ক্রিণ ক্রিম ব্যবহার করে নিন। আর ছাতা ব্যবহার করা খুবই জরুরী।
-প্রাপ্ত বয়স্করা যারা প্রতিদিন বাহিরে বের হন তারা মাসে দু বার ফেসিয়াল করাতে পারেন। গরমের সময় ত্বকের যত্নে তা খুবই জরুরী।

বৈশাখী

বৈশাখী সাজ
বৈশাখী সাজ বৈশাখ মানেই রঙের ছড়াছড়ি। পহেলা বৈশাখ গরমের ফলে সাজ পোশাকের ক্ষেত্রেও সচেতনতা প্রয়োজন। এক্ষেত্রে যেকোন সূতি কাপড় আপনার জন্য বেশী উপযোগী। পহেলা বৈশাখের পোশাকে যেহেতু লাল এবং সাদা র কম্বিনেশন থাকে তাই সাজের সময় এ বিষয়টি মাথায় রাখা ভাল।। প্রথমে আপনি আপনার মুখ পরিষ্কার করে ধুয়ে নিন। সানস্ক্রিম ব্যবহার করুন। ১০ মিনিট পর ফাউন্ডেশন ব্যবহার করুন। ফাউন্ডেশনের উপরে ফেইস পাউডার ব্যবহার করুন। চোখে কাজল-মাশকারা ব্যবহার করুন। কপালে টিপ, লিপ লাইনার দিয়ে ভালো করে ঠোট এঁকে তাতে মেচিং করে লিপস্টিক ব্যবহার করুন।
-শাড়ির ক্ষেত্রে চুল পিছনে খোঁপা করে তাতে ফুলের মালা দিলে বেশ মানানসই হবে।
-বৈশাখী সাজে হাতে কাচের চুড়ি পড়তে পারেন।
-মাটি, কাঠ বা পুতির তৈরি হালকা গহনা পড়তে পারেন।
-সোলোয়ার কামিজের ক্ষেত্রে চুল পেছনে উঁচু করে আটকাতে পারেন।
-সেলোয়ার কামিজের সাথেও মানানসই গহনা পড়তে পারেন। -হালকা সাজে আপনাকে সারাদিন স্নিগ্ধ সুন্দর ও প্রফুল্ল রাখবে। নতুন বছর হোক আপনাদের জন্য সুন্দর, সুখ ও আনন্দের।

শুভ নববর্ষ ১৪২৩ বন্ধুরা

ফেসবুক কমেন্ট

comments

About ফারজানা হোসেন