cool hit counter

মাত্র ১ মাসেই চুল পড়া কমাবে এই ছোট্ট গোপন ফর্মুলায়!

মাথা থেকে খুব দ্রুত চুল পড়ে কমে যাচ্ছে চুলের পরিমাণ? আশঙ্কা হচ্ছে যে, চুল পড়তে পড়তে শীঘ্রই একটা চকচকে টাক দেখা দেবে মাথায়? এই রকম হলে অনলাইন বাংলা স্বাস্থ্য টিপস পোর্টাল আপনাকে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়ার কথাই বলবে। চুল পড়তে পড়তে  মাথায় টাক সমস্যা সমাধান হয়তো চিকিৎসকই করতে পারেন। তবে আপনার চুল পড়া কমানোর জন্য আমরা আপনাকে প্রাকৃতিক উপায়ে একটি কন্ডিশনার তৈরির পদ্ধতি বলে দিতে পারি যা সপ্তাহে দুই দিন ব্যবহার করলে আপনার চুল পড়া কমে যাবে একমাসে শতকরা ৭০ ভাগেরও বেশি।

চুল পড়া

মাত্র ১ মাসেই চুল পড়া কমাবে এই ছোট্ট গোপন ফর্মুলায়!

তাহলে জেনে নিন চুল পড়া কমানোর সেই গোপন ফর্মুলা!
প্রয়োজনীয় উপকরণ:

• দশটি জবা ফুল
• একটা পাকা কলা
• আধা কাপ নারকেল তেল
• এক টেবিল চামচ অলিভ ওয়েল
• এক টেবিল চামচ পেঁয়াজের রস
• দুইটি ডিমের কুসুম
• এক টেবিল চামচ লেবুর রস
• এক টেবিল চামচ আপেল সিডার ভিনেগার
• এক টেবিল চামচ ঘৃতকুমারী পাতার নির্যাস
• দুই ফোটা ল্যাভেন্ডার বা গোলাপের সুগন্ধ

পড়ুন  খুশকি দূর করতে মাথায় মুলতানি মাটির ব্যবহার

দেখতে পারেন চুল পড়া বন্ধ করুন ৫টি প্রাকৃতিক উপায়ে

চুল পড়া কমানোর ফর্মুলা তৈরি পদ্ধতি ও ব্যবহার:

সবগুলো উপকরণ এক সাথে নিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। ভালো ভাবে মেশাবেন। প্রয়োজনে ব্লেন্ড করে নিতে পারেন। পেস্ট তৈরি হওয়ার পর চুল শ্যাম্পু করে ধুয়ে নিয়ে চুলের গোড়া থেকে ভালো ভাবে পেস্টটা মাখিয়ে নিন। পেস্ট চুলে যত্ন নিয়ে মেখে ২০ থেকে ৩০ মিনিট রেখে দিন। তারপর ভালো ভাবে ধুয়ে ফেলুনজেনে নিন কীভাবে চুল পড়া সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন?

এইভাবে সপ্তাহে দুই দিন করে এক মাস ব্যবহার করে দেখুন। দেখবেন আপনার চুল পড়া কমে যাবে শতকরা ৭০ ভাগেরও বেশি। আর হ্যাঁ চুল পড়া কমাতে; পুষ্টিকর খাবার, শাকসবজি, ফলমূল খাওয়া, পরিমান মতো পানি পান আর নিয়মিত ঘুম ও হালকা ব্যায়ামের কথা ভুলে যাবেন না। আপনার হোক স্বাস্থ্যকর চুল। সুস্থ্য থাকুন।

দেখতে পারেন চুল পড়া থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায়

যে কোন স্বাস্থ্য বিষয়ক তথ্যের জানান দিতে আপনার ডক্টর রয়েছে আপনাদের পাশে।জীবনকে সুস্থ্য, সুন্দর ও সুখময় করার জন্য নিয়মিত ভিজিট করুন আপনার ডক্টর health সাইটে।মনে না থাকলে আপনি সাইট আপনার ব্রাউজারে সেভ করে রাখুন।ধন্যবাদ

ফেসবুক কমেন্ট

comments

About সাদিয়া প্রভা

সাদিয়া প্রভা , ইন্ডিয়ার Apex Group of Institutions এর BBA এর ছাত্রী ছিলাম। বর্তমানে বাংলাদেশে স্বাস্থ্য বিয়সক তথ্য নিয়ে লেখালেখি করি।