cool hit counter
Home / লাইফস্টাইল / দাম্পত্য জীবনে রোমান্স বাড়াতে কিছু টিপস

দাম্পত্য জীবনে রোমান্স বাড়াতে কিছু টিপস

একটি সুখ, শান্তি ও রোমান্স ভরপুর দাম্পত্য জীবন সকলেরই কাম্য। প্রতিটি নারী ও পুরুষ বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হন সুখী হবার স্বপ্ন দেখে। জীবনের সকল চড়াই উৎরাই একসাথে পার করার অঙ্গীকারে আবদ্ধ হন বিবাহের সম্পর্কে। সম্পর্কের শুরুতে মধুরতা, রোমান্স থাকলেও ধীরে ধীরে ফিকে হয়ে আসে এই মধুরতা। ব্যস্ততায় সময় না পাওয়ায় বাড়তে থাকে দূরত্ব।

রোমান্স

দাম্পত্য জীবনে রোমান্স বাড়াতে কিছু টিপস

কিন্তু আপনি সহজেই আপনার দাম্পত্য জীবন প্রেমময় করে তুলতে পারবেন সামান্য কিছু কাজে। এই সহজ কাজগুলি করলে আপনি আপনার সম্পর্কের মধুরতা ও রোমান্টিকতা ফিকে হওয়া থেকে রক্ষা করতে পারবেন। জেনে নিন সেই উপায় গুলোকে যে উপায়ে আপনি আপনার দাম্পত্য জীবনকে সর্বদা প্রেমময় রাখতে পারবেন।

 

জীবনে আরেকটু রোমান্স চাচ্ছেন ? আরো কিছু সুন্দর মুহূর্ত যোগ করতে চান আপনার রঙ্গিন মাহিন্দ্র ক্ষণে ? তাহলে এই টিপসগুলো শুধুই আপনার জন্য

প্রতিদিনের সেই একই রুটিন ও অভ্যাস থেকে বের হয়ে আসার চেষ্টা করুন। ঘরের পুরনো কক্ষটি রেখে এবার অন্তত এক রাত্রির জন্য হলেও মনোরম কোন স্থানে ভালো কোন হোটেলের একটি রুম ভাড়া করতে পারেন। তারপর সে কক্ষের লাইটটি বন্ধ রেখে, আপনি জ্বালাতে পারেন একটি মোমবাতি ! এরপর হেটেলের ওয়েটার, অথবা সঙ্গিনীকে বলুন, আলতো করে শরীরে তেল মালিশ করে দিতে।

একটু সচেতন হলেই এভাবে জীবনে রোমান্স করতে পারেন আপনি। দাম্পত্য জীবনের যৌন সম্পর্কই কেবল আপনার সুখের একমাত্র উপাদান হতে পারে না। সুখ র্খুঁজে নিতে হবে ছোট্ট-ছোট্ট অনুষঙ্গ থেকে।

সুযোগ পেলে প্রশংসা করতে ভুল করবেন না আপনার জীবন সঙ্গি বা সঙ্গিনী। এরা আপনার কাছে কতখানি গুরুত্বপর্ণ, কতটা সুন্দর- এগুলো বলুন না এক সময়। দেখবেন, সময়গুলো কত মধুময় হয়ে উঠছে! চেষ্টা করবেন, সব অবস্থায় জীবনকে উপভোগ করতে।

বেডরুমে নতুন কিছু করার চেষ্টা করতে ভয় পাবেন না। একই খাবার যেহেতু আপনি প্রতিদিন খান না, সুতরাং বেডরুমে সেই পরনো ধারাটাই বা কেন রেখে চলবেন? এ রাজ্য নতুনত্ব চায়। তাই মজাদার নতুন পদ্ধতি গ্রহণ করুন। আর এমন কিছু করুন, যেটি আপনার সঙ্গি বা সঙ্গিনীকে মজা দেবার সাথে সাথে অবাক করে দিতে বাধ্য হয়।

গভীর মানসিক সেতুবন্ধন
সুন্দর শারীরিক সম্পর্কের সাথে গভীর মানসিক বন্ধনের একটা স্পষ্ট সম্পর্ক আছে। আপনারা যখন পরস্পরের প্রেমে ডুবে থাকবেন, তখন শারীরিক সম্পর্ক আপনা থেকেই আনন্দময় হয়ে উঠবে। তাই মানসিক রোমান্সকে কখনো অবহেলা করবেন না । বিয়ে হয়েছে তো কী হয়েছে? বরং আগের চাইতে বেশি সঙ্গীর প্রশংসা করুন, ভালোবাসি বলুন, নানা ভাবে ভালোবাসার প্রকাশ ঘটাতে মোটেও কার্পণ্য করবেন না।

 

নিজেকে আকর্ষণীয় ভাবে সাজান
প্রতিদিন ওই একঘেয়ে ঘরের পোশাক পরে থাকলে সঙ্গী আগ্রহ পাবে কেন? বাড়িতে পরার পোশাকে তো রোজই দেখেন তিনি আপনাকে, আর তাই মাঝে মাঝে নিজেকে একটু অন্য রকমভাবে উপস্থাপন করুন। নারী-পুরুষ উভয়ের জন্য রাতের সুন্দর সব পোশাক কিনতে পাওয়া যায়, সেগুলো ব্যবহার করতে পারেন। আর এমনিতেও ঘরের মাঝে পরিপাটি থাকুন। রোমান্সের মাধ্যমে যৌন আকর্ষণ ফিরে আসবেই।

এছাড়া, আপনার বেডরুম শয্যাশায়ী হওয়া ও সময় কাটানোর জন্য আরামদায়ক কিনা, আরেকবার দেখে নিন। মনে রাখবেন, রোমান্টিক পরিবেশই রোমান্স সৃষ্টিতে সহায়তা করে থাকে। তাই ঘরটিকে আরেকটু গুছিয়ে রাখা ভালো।

ফেসবুক কমেন্ট

comments

About সাদিয়া প্রভা

সাদিয়া প্রভা , ইন্ডিয়ার Apex Group of Institutions এর BBA এর ছাত্রী ছিলাম। বর্তমানে বাংলাদেশে স্বাস্থ্য বিয়সক তথ্য নিয়ে লেখালেখি করি।

Check Also

মেয়েরা

যেসব ছেলেদের সবচেয়ে বেশি পছন্দ করে মেয়েরা

রসিক পুরুষরা মেয়েদের মন জয় করতে বেশ পটু হয়ে থাকেন। যেসব ছেলেদের ‘সেন্স অফ হিউমার’ …

One comment